টপিক: ধারাবাহিক : মিসওয়াকের মহা বিস্ময়কর রুপ (পর্ব-৩০)

১০. দাঁত ও গলা এবং মিসওয়াক
গলার স্বর অতি গুরুত্বপূর্ণ। যাদের গলার স্বর কর্কশ তাদের কথা বার্তা অনেক সময়ই অসহনীয় হয়ে উঠে। তারা অনেক সময় বিরক্তির পাত্র হন। গলার স্বরের কারণেই অনেকের কুরআন তেলাওয়াত শুনতে মধুর লাগে। যার কারণে হযরত দাউদ (আঃ) এর কুরআন তিলাওয়াত শুনতে বনের পশু পাখি হিংসা দুশমন ভুলে লাইন ধরত, মৎসকূল সমূদ্রের কিনারে চলে আসত। মৃত্যুর পর তার কন্ঠে কুরআন তেলাওয়াত শোনার জন্য ব্যাকুল হয়ে উঠবেন। যে স্বরের কারণে কোকিলের গান এত মধুর। কাকের বা গাধার কন্ঠ এত কর্কশ। যে স্বরের জন্য নারীর মোহিনী কন্ঠ পুরুষদের এত বিচলিত করে, মুগ্ধ করে, উতলা করে। গায়ক-গায়িকার গান সুন্দর লাগে। যে নম্র, স্মিত, তেজী বা দৃপ্ত স্বরের কারণেই আমাদের প্রিয় শেষ নবী হযরত মুহাম্মদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম এর কাছে বিদ্রোহীরা পরাজিত, স্বজনেরা অতি কাছের লোক হয়েছেন। সেই স্বর আসে গলা থেকে। গলার রোগের মধ্যে অন্যতম হল টনসিলাইটিস (Tonsillitis) রোগ বা টনসিলের প্রদাহ। দাঁতের অসুখের কারণে টনসিলাইটিস হতে পারে। অধিকাংশ ক্ষেত্রে ‘বিটা হিমোলাইটিক স্ট্রেপটোকক্কাস’ জীবাণু এই প্রদাহের কারণ। এই রোগ চেনার উপায় হল -
ক) গলা ফুলে যেতে পারে, খ) গলা ব্যথা হতে পারে, গ) শরীরের তাপমাত্রা বেড়ে যায়, জ্বর আসলে কাঁপুনি বেড়ে যেতে পারে, ঘ) ক্ষুধামন্দা হতে পারে, ঙ) কানেও ব্যথা হতে পারে। এই টনসিলাইটিস রোগের জন্য পিলু বৃক্ষের মিসওয়াক ভাল উপকার দেয়।

আপনার আমন্ত্রণ রইল আমাদেরে এলাকায় মন্তব্য করা ও কিছু লিখার জন্য চলনবিল

জবাব: ধারাবাহিক : মিসওয়াকের মহা বিস্ময়কর রুপ (পর্ব-৩০)

শেয়ার করার জন্য জাযাকাল্লাহ।