টপিক: ভাবলাম সমাধান করলাম কিন্তু তা নিরুপনের দায়িত্ব পাঠকের

অনেকদিন আগে আমাদের এডমিন ভাই জাবেদকে বলে এলোমেলো ক্যাটাগড়িতে ‘ইসলাম ও বিজ্ঞান’ নামে একটি ফোরাম খোলার জন্য অনুরোধ করেছিলাম। তখন আমি নতুন লেখক। মূলত আমি ইসলাম ও বিজ্ঞান বিভাগে বেশি লিখতাম। হঠাৎ করে বর্তমান শিক্ষা ব্যবস্থায় একটি বিষয় যোগ হয়েছে ইসলাম শিক্ষা বইকে তারা ‘ইসলাম ও নৈতিক শিক্ষা’ নাম দিয়েছেন। আমার মধ্যে বিষয়টি বেশ আলোড়ন সৃষ্টি করল। আমি ‘ও’ নিয়ে ভাবতে শুরু করলাম। অনেক ভেবে দেখলাম ‘ও’ কয়েকটি যায়গায় ব্যবহৃত হয় তার মধ্যে কোন জিনিসের তুলনা, পার্থক্য, সমার্থক ইত্যাদি যায়গায়। যেমন ‘ইসলাম ও বিজ্ঞান’ নিয়ে যখন টপিক হয় তখন মনে হয় দুটি ভিন্ন জিনিস। কিন্তু বিজ্ঞান যা তাতো কুরআন, হাদিসেরই একটা অংশ। তেমনি ‘ইসলাম ও নৈতিক শিক্ষা’ মানে আমার কাছে মনে হয়েছে হয়তো ইসলামে নৈতিক শিক্ষা নেই অথবা অভাব রয়েছে এমন বুঝাচ্ছে।ধরুন গরু ও ছাগল ভিন্ন প্রজাতি, বাবা  ও মা, রহিম ও করিম ইত্যাদি দ্বারা বুঝা যায় তা একে অপরের ভিন্ন। সুতরাং ‘ইসলাম ও বিজ্ঞান’ বিভাগকে পরিবর্তন করে ‘ইসলামে বিজ্ঞান’ করা হলো। আশা করি আপনাদের মূল্যবান মতামত দিবেন।

আপনার আমন্ত্রণ রইল আমাদেরে এলাকায় মন্তব্য করা ও কিছু লিখার জন্য চলনবিল

Share

জবাব: ভাবলাম সমাধান করলাম কিন্তু তা নিরুপনের দায়িত্ব পাঠকের

ব্যপারটা আমার কাছেও খটকা লাগছিল ।যাহোক 'ইসলামে বিজ্ঞান' পড়তেও ভাল লাগছে ।যেখানে ইসলাম ও বিজ্ঞান পূর্বে বিপরীতার্থক মনে হত ।

ফোরামে আছি ।